মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

অফিস সম্পর্কিত

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর কৃষি মন্ত্রণালয়ের অধীন দেশের কৃষি সেক্টরের সর্ববৃহত সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান। দেশকে খাদ্য ঘাটতি থেকে খাদ্যে উদ্বৃত্ত এবং কৃষকের আর্থসামাজিক উন্নয়ন তথা মর্যদা প্রতিষ্ঠার একমাত্র সহায়ক শক্তি হিসেবে সেবা দেবার গৌরদীপ্ত অধিকার এ প্রতিষ্ঠান সংরক্ষণ করে।

বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য জেলাগুলোর মধ্যে কৃষিতে সমৃদ্ধ, ঐতিহ্যমন্ডিত এবং সম্ভাবনাময় জেলা রংপুর। বর্তমান কৃষি বান্ধব সরকারের কৃষি খাতে সফলতা অর্জন সর্বজন স্বীকৃত। আর এ অর্জনে রংপুর জেলার কৃষি খাতের ভূমিকা অত্যান্ত গুরুত্বপূর্ণ। সব ধরনের ফসল কম বেশী এ জেলায়  উৎপাদন হয়ে থাকে। আধুনিক কৃষি প্রযুক্তি ব্যবহারের ক্ষেত্রে রংপুরের কৃষকগণ বরাবরই অগ্রনী ভূমিকা পালন করে আসছেন। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের পাশাপাশি কৃষি সংশিস্নষ্ট গবেষণা প্রতিষ্ঠান, বিএডিসি, এনজিও এর সহযোগিতায় বিভিন্ন কার্যক্রম সফলভাবে এগিয়ে চলছে।

            বর্তমান সরকার কর্তৃক কৃষকদের জন্য ডিজেল, বিদ্যুৎ, সার, খামারযন্ত্রপাতিসহ কৃষি ক্ষেত্রে উন্নয়ন সহায়তা প্রদান, সহজ শর্তে কৃষি উপকরণ সরবরাহ, স্বল্প সুদে কৃষি ঋণ বিতরণের ফলে কৃষি উৎপাদন বৃদ্ধিসহ কৃষি ক্ষেত্রে ব্যপক উন্নয়ন ঘটেছে।

রংপুর জেলায় আবাদকৃত প্রধান প্রধান ফসল- ধান, গম,  ভূ্ট্টা,  পাট, সরিষা, শাকসব্জী, আলু ও মসলাজাতীয় ফসল। আলু চাষে রংপুর জেলা শীর্ষস্থানে রয়েছে। গত বছর ধরে এ জেলার উৎপাদিত আলু রাশিয়া, সিঙ্গাপুর, মধ্যপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশে রপ্তানী হচ্ছে ।

            রংপুরে উৎপাদিত ফলের মধ্যে রয়েছে- আম, কাঁঠাল, কুল লিচু ও কলা। রংপুরের হাড়িভাঙ্গা আম সারাদেশে বিশেষভাবে সমাদৃত।

            নদীর চরে আলু, ভূট্টা, চিনাবাদাম, মরিচ, মিষ্টি কুমড়া, স্কোয়াশ, তরমুজ সহ  বিভিন্ন ফসল চাষ করে চরাঞ্চলের চাষীরা লাভবান হচ্ছেন।

ছবি


সংযুক্তি